ক্রীড়া প্রতিযোগিতা শিক্ষার একটি বড় অংশঃ শ্রম প্রতিমন্ত্রী

শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান বলেছেন, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা শিক্ষার একটি বড় অংশ। তাই লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলাধুলা করা প্রয়োজন। খেলাধুলা জীবন গঠনে ও প্রতিযোগিতামূলক মনোভাব সৃষ্টিতে সাহায্য করে।

তিনি আজ (শনিবার) রাতে খুলনার দৌলতপুর আলিম মাদ্রাসার নবনির্মিত ভবন উদ্বোধন এবং বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি মাদ্রাসা শিক্ষার মান উন্নয়নে কাজ করছে বর্তমান সরকার। এই সরকারের আমলে কওমী মাদ্রাসার সনদ স্বীকৃতি পেয়েছে। মাদ্রাসার শিক্ষাব্যবস্থা যুগোপযোগী করা হয়েছে। স্কুল কলেজের পাশাপাশি সকল মাদ্রাসাতেও কম্পিউটার শিক্ষার জন্য শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব স্থাপন করা হয়েছে।  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার গীরব অসহায় শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার জন্য উপবৃত্তি চালু করেছে। শিক্ষার মানউন্নয়নে ভালো পরিবেশ প্রয়োজন। এজন্য দেশের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে নতুন ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ম্যাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা খুলনা অঞ্চলের উপপরিচালক খোঃ রুহুল আমীন, জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ কামরুজ্জামান ও বিজেএ’র চেয়ারম্যান শেখ সৈয়দ আলী। এতে সভাপতিত্ব করেন মাদ্রাসার পরিচালনা পরিষদের সভাপতি মোঃ ফজলুর রহমান শরীফ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মোঃ ইয়াহ ইয়া মোল্লা। অনুষ্ঠানে কেসিসি’র ৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মোঃ আব্দুস সালাম, সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মনিরা আক্তার, বীর মুক্তিযোদ্ধা মাকসুদ আলম খাজা, মহেশ^রপাশা শহিদ জিয়া কলেজের সভাপতি কাজী নাসিবুল হাসান সান্নু, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোঃ দাউদ হায়দার, মাদ্রাসার উপাধ্যক্ষ মোঃ আব্দুল মান্নান, বিদ্যোৎসাহী সদস্য মোঃ রুহুল আমীন,  ৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি আছিফুর রশীদ আছিফ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের বাস্তবায়নে উর্ধ্বমূখী সম্প্রসারিত দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ তলা ভবনটি নির্মাণে ব্যয় হয় প্রায় এককোটি ৭২ লাখ টাকা। খবরঃ বিজ্ঞপ্তির